শপথগ্রহণ করেননি বিলাওয়াল

নতুন মন্ত্রিসভায় থাকা না থাকা নিয়ে এতদিন বেশ আলোচনায় ছিলেন পাকিস্তান পিপলস পার্টির চেয়ারম্যান বিলাওয়াল ভুট্টো জারদারি। তবে শেষ পর্যন্ত প্রথম ধাপের মন্ত্রিপরিষদে শপথ নেননি তিনি।

এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের খবরে বলা হয়েছে, মঙ্গলবার আইন-ই-সদরে আয়োজিত শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকলেও শপথগ্রহণ করেননি বিলাওয়াল। ব্রিটেন সফর থেকে ফিরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেওয়ার কথা রয়েছে তার।

মন্ত্রিসভা পরিষদের তালিকা অনুযায়ী, ক্ষমতাসীন জোটের প্রধান শরিক ও ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির শীর্ষ দল মুসলিম লীগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন) থেকে ১২ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী, দুই প্রতিমন্ত্রী ও দুই উপদেষ্টা নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। পিপিপি থেকে এসেছেন নয়জন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী, একজন প্রতিমন্ত্রী ও একজন উপদেষ্টা।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম-ফজল (জেইউআই-এফ) থেকে ৪, এমকিউএম-পাকিস্তান থেকে ২ এবং জেডব্লিউপি, বিএপি ও পিএমএল-কিউ থেকে একজন করে মন্ত্রী নিয়োগ পেয়েছেন।

মুসলিম লীগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন)- থেকে খাজা আসিফ, আহসান ইকবাল, রানা সানাউল্লাহ, আইয়াজ সাদেক, খুররম দস্তগীর, রানা তানভীর, মরিয়ম আওরঙ্গজেব, সাদ রফিক, রিয়াজ হুসাইন পীরজাদা, আজম নাজির ও জাভেদ লতিফ মন্ত্রিসভায় ঠাঁই পেয়েছেন।

পাকিস্তান পিপলস পার্টির (পিপিপি) খোরশেদ শাহ, নুয়াদ কামার, শিরি রহমান, মুরতাজা মাহমুদ, এহসানুর রহমান মাজারি, আবিদ হুসাইন এবং শাজিয়া মেরি জায়গা পেয়েছেন নতুন এ মন্ত্রিসভায়।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম-ফজল (জেইউআই-এফ) থেকে আসআদ মাহমুদ, আবদুল ওয়াসে, আবদুশ শাকুর ও মুহাম্মদ তালহা এবং এমকিউএম- থেকে সাইয়েদ আমিনুল হক, ফয়সাল মন্ত্রিসভার সদস্য হয়েছেন।

স্থানীয় সময় সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে ৮টায় পাকিস্তানের নতুন মন্ত্রিসভার সদস্যদের শপথ নেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভি নতুন মন্ত্রিদের শপথ পড়াতে অপারগতা জানানোর পর শপথগ্রহণ একদিন পিছিয়ে দেওয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *